বদিউল আলম মতির মৃত্যুতে হত-দরিদ্র রোগী কল্যাণ সমিতির শোক পালন

রেজাউল হাবিব রেজাঃ গতকাল ৯এপ্রিল২০২২শনিবার বিকেল ৪ঘটিকায় কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতাল কক্ষে হত-দরিদ্র রোগী কল্যাণ সমিতির উদ্যোগে সংগঠনের কার্যনির্বাহী সদস্য বদিউল আলম মতির মৃত্যুতে এক স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের স্বপ্নদ্রষ্টা ডা. ম. আতিকুল সারওয়ার। এতে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন কিশোরগঞ্জ জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাড. জিল্লুর রহমান। হত-দরিদ্র রোগী কল্যাণ সমিতির সাধারণ সম্পাদক, বিআরডিবির সাবেক পরিচালক বীর মুক্তিযোদ্ধা অ্যাড. মো. নিজাম উদ্দিনের উপস্থাপনায় অনুষ্ঠিত স্মরণসভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ এন্ড হাসপাতালের পরিচালক ডা.মো. হাবিবুর রহমান, একই হাসপাতালের পরিচালক ডা. মো. মজিবুর রহমান, কিশোরগঞ্জের সিভিল সার্জন ডা.মো.সাইফুল ইসলাম, হত-দরিদ্র রোগী কল্যাণ সমিতির প্রধান উপদেষ্টা ও আধুনিক সদর হাসপাতালের পরিচালক ডা.মো.হেলাল উদ্দিন, শেরপুর ইসলামী ব্যাংকের ম্যানেজার কবি ও ছড়াকার, বিশিষ্ট লেখক মু. মুসলেহ উদ্দিন, মো. ইসরাইল, মো. সাখাওয়াত হোসেন, মো. সাখাওয়াত হোসেন, মো. খায়রুল আলম, দৈনিক ইনকিলাব পত্রিকার প্রতিনিধি সাংবাদিক এ কে নাসিম খান, বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. আ. মতিন, জেলা পাবলিক লাইব্রেরি কিশোরগঞ্জ এর সাধারণ সম্পাদক বিশিষ্ট সাংবাদিক,লেখক ও গবেষক মু আ লতিফ, হত-দরিদ্র রোগী কল্যাণ সমিতির সহসভাপতি মো. আমীরুজ্জামান, সংগঠনের সদস্য অ্যাড. হামিদা খাতুন ও সাংবাদিক আমিনুল হক সাদী প্রমুখ।

হত-দরিদ্র রোগী কল্যাণ সমিতি সম্পর্কে জানা যায় যে, এটি ২০১২সালের জুলাই মাসে যাত্রা শুরু করে। ২০১৩সালের ৮এপ্রিল তা আনুষ্ঠানিকভাবে প্রতিষ্ঠা লাভ করে। সংগঠনের স্বপ্নদ্রষ্টা ডা.মো.আতিকুল সারওয়ার। যাত্রাকালীন এর সদস্য সংখ্যা ছিল ৬২জন এবং কার্যনির্বাহী সদস্য ছিল ০৯ জন। বর্তমানে কার্যনির্বাহী সদস্য ১৩জনে উন্নীত। তাছাড়া সংগঠনের পৃষ্ঠপোষক, ও উপদেষ্টাও বিদ্যমান। সংগঠনটি এ যাবত ৫৫জন রোগীকে সেবা দিয়েছে। এজন্য ব্যয় করতে হয়েছে ১,০৩,০০০/এক লক্ষ তিন হাজার টাকা।

এতে অনুদান পেয়েছে ১৭জন মানবতাবাদী মানুষের কাছ থেকে। হত-দরিদ্র মানুষকে চিকিৎসা সহায়তা দানের মাধ্যমে সেবায় ব্রত হওয়াই এ সংগঠনের মূল লক্ষ্য। নিঃস্ব,সহায় সম্বলহীন,বিত্তহীন তথা যার নিজস্ব কোনো বাড়ি ও জমাজমি নেই, নিজের গায়ের শ্রম বিক্রি ছাড়া আয়ের কোনো উৎস নেই, যাকাত-ফেতরা- ভিক্ষা তথা অন্যের দান খয়রাতে যাদের জীবন চলে তাদের জন্যই প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে এই হত-দরিদ্র রোগী কল্যাণ সমিতি।
এমন এক মহত কাজের এক সৈনিক ছিলেন বদিউল আলম মতি। কার্যনির্বাহী সদস্য পদে থেকে গত ২১মার্চ ২০২২ দুনিয়া ছেড়ে পরপারে চলে যান। তার স্মরণে অনুষ্ঠিত হওয়া শোকসভাটি অনেক সার্থক ও অর্থবহ হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.